Agenda

Ghanada Club Agenda

(Updated on August 1, 2020)

Ghanada Club reopened on September 15, 2019 after 35 years. Our goal is to bring Ghanada to the Ghanada lovers and others all over the world through different channels. Ghanada is not going to remain hidden in the pages of 68 stories and one large fiction written by one of most prominent Bengali writers, Premendra Mitra during 1945 and 1987.

Below are a few projects we are working on

  1. We converted all 68 stories to Audio Stories in Bengali and they are available on YouTube. https://www.youtube.com/GhanadaStories
  2. We converted 5 Ghanada Comics (Graphics Novels) to Audio/Visual format for YouTube. We still need to do 5 more. https://www.youtube.com/playlist?list=PLX2likstIeUrBGtDIJIBNxHDSVirp4D34
  3. We translated 20 Ghanada stories into English. Hope to publish a book with 20 stories by the fall of 2020 as an e-book and also into printed form. Down the road we will translation rest of the stories (about 40 short and long) in two or three different volumes. https://www.ghanada.com/translations/
  4. Among many other works like website, facebook page, wiki page, we are working on to create a complete travelogue of Ghanada: https://www.ghanada.com/travelogue/
  5. Finally, open a Ghanada library and a museum somewhere in central Kolkata, India where Ghanada lovers can come and enjoy some memories of Ghanada.

May be one day, to our surprise, Ghanada will return to his old messbari.

Web: www.ghanada.com

e-mail: ghanada.club@gmail.com

WhatsApp: +1-301-512-1295 or +91-905-105-6178 

YouTube: www.youtube.com/GhanadaStories

Facebook: www.facebook.com/GhanadaClub

ঘনাদা ক্লাব: বর্তমান ও ভবিষ্যৎ কর্মসূচী

(আগস্ট ১, ২০২০)

CLICK HERE FOR A PRINTABLE AGENDA

ঘনাদা ক্লাব কলকাতায় নতুন করে চালু হয়েছে দীর্ঘদিন বন্ধ হয়ে পড়ে থাকা পুরোনো ক্লাবের ধারাবাহিকতাকে বজায় রেখে। প্রায় ৩৫ বছর পর গত ১৫ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ঘনাদা ক্লাবের প্রথম সন্মেলন আবার নতুন রূপে ফিরে এলো। নতুন উৎসাহ, উদ্দীপনা ও দৃষ্টিভঙ্গির সাহায্যে প্রেমেন্দ্র মিত্রের অমর সৃষ্টি ঘনাদা চরিত্রটিকে নানা ভাবে যুগোপযোগী করে সারা পৃথিবীর পাঠকের কাছে পৌঁছে দেওয়াই এই ক্লাবের মূল লক্ষ্য। এই লক্ষ্য নিয়ে ঘনাদা ক্লাব ইতিমধ্যেই অনেকগুলো কর্মসূচী নিয়েছে।

  • ওয়েবসাইট ফেসবুক : ইতিমধ্যে একটি ওয়েবসাইট ও ফেসবুক এর পেজ তৈরী
    হয়েছে। ফেসবুকের মাধ্যমে ক্লাবের সৃষ্টিশীল কাজগুলো সকলের কাছে পৌঁছে যাচ্ছে।
  • হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ : এর মাধ্যমে ইতিমধ্যেই ১৫০ সদস্য বিশিষ্ট একটি গ্রুপ তৈরী হয়েছে। যেখানে প্রতিনিয়ত ঘনাদা সংক্রান্ত কাজ এবং মতের আদান প্রদান হয়ে চলেছে।
  • ইউটিউব চ্যানেল : ঘনাদার সমস্ত (৬৮টি) গল্পই পাঠ হয়ে গ্যাছে। সুখবর এটাই যে বিভিন্ন লোকে ১,৩০,০০০ এর বেশী বার এগুলো দেখেছেন সর্বমোট ৩৭,০০০ ঘন্টা সময় ধরে এবং ১৫৫০ এরও বেশীজন সাবসক্রাইবার হয়েছে। ইংরিজিতেও কয়েকটি গল্প পাঠ করা হয়েছে স্পীচ-টু-টেক্সট টেকনোলজি ব্যাবহার করে। https://www.youtube.com/GhanadaStories
  • ঘনাদার ট্রাভেলগ : ঘনাদা কোথায় কোথায় অভিযানে গিয়েছিলেন সেইসব জায়গার বিবরন দিয়ে ম্যাপ তৈরী এর উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। https://www.ghanada.com/travelogue/
  • ইংরেজী অনুবাদ : প্রায় ২০ টি গল্পের ইংরেজী অনুবাদ বই হিসেবে প্রকাশিত আছে। বাকি ৪০ টি গল্পের মধ্যে আপাততঃ ২০টি গল্পের অনুবাদ করা হয়েছে। আশা করা যায় এই বছরের সেপ্টেম্বরই বইটি প্রকাশ করা যাবে। পরে অন্য ভাষাতেও এই চেষ্টা করা হবে। https://www.ghanada.com/translations/
  • কমিকস : এখনও পর্যন্ত ১০টি গল্প কমিকস রূপে প্রকাশিত আছে। আমরা  এরই মধ্যে  ৫টি কমিকসকে নতুন আঙ্গিকে অডিও ভিসুয়াল রূপ দিতে পেরেছি।
    https://www.youtube.com/playlist?list=PLX2likstIeUrBGtDIJIBNxHDSVirp4D34
  • উইকিপিডিয়া পেজ : অনেক তথ্য জগাড় হয়েছে । কিন্তু এখনো প্রকাশিত হয়নি। প্রকাশনার জন্য উইকিপিডিয়াতে আপনাদের সাহায্য দরকার।
  • গল্পগুলির টীকাকরণ : ঘনাদার গল্পের মধ্যে বিভিন্ন ঐতিহাসিক ঘটনা, ভৌগোলিক স্থান এবং বৈজ্ঞানিক আবিষ্কারের সংক্ষিপ্ত বিবরণ বা সটীক ব্যাখ্যা করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে ৪০টি গল্প টীকাযুক্ত করা হয়েছে।
  • নতুন ঘনাদার গল্প : ঘনাদাকে নিয়ে মূল গল্পের স্বাদ অক্ষুণ্ণ রেখে নতুন গল্প লেখার জন্য সৃজনশীল লেখক খুঁজে বের করা একটি লক্ষ্য। আপাততঃ পাঁচজন সেই ধরনের লেখা নিয়ে ওয়েবসাইটে হাজির হয়েছেন।
  • রেজিস্টার্ড সোসাইটি : ঘনাদা ক্লাব কে একটি রেজিস্ট্রার্ড সোসাইটি হিসেবে গঠন করা এবং সভ্য করার নিয়মাবলী ও আনুষঙ্গিক আইন তৈরী করা। জানুয়ারির প্রথমে জমা দেওয়া হইয়েছে।
  • ঘনাদা সমগ্র : ঘনাদা-র স্রষ্টা প্রেমেন্দ্র মিত্রের সাক্ষাৎকার এবং এ সংক্রান্ত বিভিন্ন বিজ্ঞাপন, অন্যদের লেখা বই, সাক্ষাৎকার – সংকলিত করে দুই মলাটে প্রকাশের চেষ্টা করা হবে।
  • ঘনাদা লাইব্রেরী মিউজিয়াম : শার্লক হোমসের আদলে একটি লাইব্রেরী ও মিউজিয়াম নির্মাণ করা।

কে বলতে পারে ঘনাদা তাঁর পুরনো মেসবাড়িতে নতুন বাসিন্দাদের নিয়ে চলেও তো আসতে পারেন কোনোদিন!

Web: www.ghanada.com

e-mail: ghanada.club@gmail.com

WhatsApp: +1-301-512-1295 or +91-905-105-6178 

YouTube: www.youtube.com/GhanadaStories

Facebook: www.facebook.com/GhanadaClub